সংবাদ শিরোনাম

কেন্দ্ৰীয় মন্ত্ৰিসভায় শপথ নিলেন অসমের রামেশ্বর তেলি

রামেশ্বর তেলি

গুয়াহাটিঃ নরেন্দ্ৰ মোদির নেতৃত্বাধীন কেন্দ্ৰীয় মন্ত্ৰিসভায় অন্তর্ভুক্ত হলেন অসমের চা সম্প্ৰদায়ের নেতা রামেশ্বর তেলি। অসমের জন্য বাস্তবিকই এটা গৌরবের বিষয়। গেরুয়া কুর্তা এবং অসমের পরম্পরাগত গামোছা গলায় জড়িয়ে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় রাষ্ট্ৰপতি ভবনের ফোরকোর্টে আয়োজিত অনুষ্ঠানে মোদি মন্ত্ৰিসভার একজন মন্ত্ৰী হিসেবে শপথ নেন তিনি।

সম্প্ৰতি লোকসভার নির্বাচনে তেলি ডিব্ৰুগড় কেন্দ্ৰ থেকে নির্বাচিত হন। বৃহস্পতিবার রাত ৮.৫০ মিনিট নাগাদ রাষ্ট্ৰপতি রামনাথ কোবিন্দ তেলিকে গোপনীয়তা রক্ষার শপথবাক্য পাঠ করান। শুক্ৰবার কেন্দ্ৰীয় মন্ত্ৰিসভার সদস্যদের দপ্তর বন্টন করা হয়। সেই অনু্যায়ী রামেশ্বর তেলিকে খাদ্য প্ৰস্তুতকরণ বিভাগের প্ৰতিমন্ত্ৰীর দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। লোকসভায় নির্বাচিত হওয়ার আগে(২০০১-২০১১)পর্যন্ত দুলিয়াজান বিধানসভা কেন্দ্ৰ থেকে দুদুবার বিধায়ক নির্বাচিত হয়েছিলেন তেলি।

২০১৪ সালে তেলি প্ৰথমবার লোকসভায় নির্বাচিত হয়েছিলেন। সাম্প্ৰতিক লোকসভা নির্বাচনে তেলি ডিব্ৰুগড় কেন্দ্ৰে কংগ্ৰেসের হেভিওয়েট প্ৰার্থী পবন সিং ঘাটোয়ারকে ৩,৬৪,৫৬৬ ভোটে পরাস্ত করেন। গোটা উত্তর পূর্বাঞ্চলে তেলিই একমাত্ৰ প্ৰার্থী যিনি সর্বোচ্চ ভোটের ব্যবধানে নির্বাচনে বিজয়ী হয়েছেন। তেলি সাকুল্যে ভোট পেয়েছেন ৬,৫৭,৯৮৩টি।

১৯৭০ সালের ১৪ আগস্ট ডিব্ৰুগড় জেলার দুলিয়াজানে তেলির জন্ম হয়েছিল। রাজনীতিতে আসার আগে তেলি অসম চা উপজাতি ছাত্ৰ সংস্থার সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন। ছিলেন এটিটিএসএ-র দুলিয়াজান শাখার সচিব। তাছাড়া বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের সদস্যও ছিলেন তিনি।

কেন্দ্ৰীয় মন্ত্ৰিসভায় শপথ নেবার আগে তেলি দিল্লিতে সাংবাদিকদের বলেছেন,তাঁকে যে বিভাগই দেওয়া হোক না কেন মানুষের সেবায় কাজ করতে তিনি প্ৰস্তুত।