Top
undefined
Begin typing your search above and press return to search.

নির্বাচনে লড়ছেন না,নেডার আহ্বায়ক হিসেবেই কাজ করবেন হিমন্ত

নির্বাচনে লড়ছেন না,নেডার আহ্বায়ক হিসেবেই কাজ করবেন হিমন্ত

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  19 March 2019 11:30 AM GMT

গুয়াহাটিঃ রাজ্যের অর্থমন্ত্ৰী হিমন্তবিশ্ব শর্মা এ যাত্ৰায় রাজ্যে লোকসভার আসনে নির্বাচন লড়ছেন না। তেজপুর লোকসভা কেন্দ্ৰ থেকে শর্মার লড়ার বিষয়টি মোটামুটি পাকাই ছিল। কিন্তু দলের কেন্দ্ৰীয় নেতৃত্ব চাইছেন হিমন্ত উত্তরপূর্ব গণতান্ত্ৰিক জোটের(নেডা)আহ্বায়ক হিসেবে গোটা উত্তর পূর্বাঞ্চলে বিজেপি ও শরিক জোটের নির্বাচনী সম্ভাবনার প্ৰতি মনোনিবেশ করুন। এদিকে বিজেপি রাজ্যের ১০টি লোকসভা আসলের মধ্যে ৮টিতে প্ৰার্থীদের নাম ইতিমধ্যেই চূড়ান্ত করেছে। শুধু তেজপুর ও নগাঁও কেন্দ্ৰে দলীয় প্ৰার্থীর নাম এখনও চূড়ান্ত করা বাকি আছে।

সোমবার এখানে সাংবাদিকদের একথা জানিয়ে দলের রাজ্য সভাপতি রঞ্জিৎ দাস বলেন,‘বিজেপির সাধারণ সম্পাদক তথা উত্তর পূর্বের দায়িত্বে থাকা রাম মাধব ইতিপূর্বে আমাকে বলেছিলেন যে এবার সাধারণ নির্বাচনে শর্মাকে প্ৰার্থী করা হবে। সেই অনু্যায়ী দলের রাজ্য নির্বাচন কমিটি শর্মার নামও প্ৰার্থী হিসেবে সুপারিশ করেছিল’। কিন্তু দিল্লিতে দলের সর্ব ভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ মনে করেন,নির্বাচনে লড়ার পরিবর্তে শর্মার গোটা উত্তর পূর্বে দল ও তার শরিকদের নির্বাচনী সম্ভাবনার প্ৰতি বিশেষভাবে মন সংযোগ করা উচিত। কারণ শর্মা উত্তরপূর্ব গণতান্ত্ৰিক জোটের(নেডা)আহ্বায়ক পদে বহাল রয়েছেন। তাই ‘এমনটা বিবেচনা করেই আমরা শর্মাকে সাধারণ নির্বাচনে প্ৰার্থী তালিকার বাইরে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছি’।

রাজ্যের নির্বাচনী প্যানেলে তেজপুর লোকসভা কেন্দ্ৰে লড়ার জন্য শর্মার নাম সুপারিশ করা সম্পর্কে রিপোর্টও প্ৰকাশিত হয়েছিল। দলের রাজ্য নির্বাচনী সেল কেন্দ্ৰীয় নেতৃত্বের কাছে পাঠানো প্ৰার্থী তালিকায় নাম না থাকার রিপোর্টের প্ৰেক্ষিতে তেজপুরের সাংসদ আরপি শর্মা দলে ইস্তফা দিয়ে বসেন। এসম্পর্কে বিজেপি রাজ্য সভাপতি দাস বলেন,আরপি শর্মার নাম প্যানেলে রাখা হয়েছিল। ‘প্ৰতিটি সংসদীয় কেন্দ্ৰের জন্য দুজন করে সম্ভাব্য প্ৰার্থীর নাম প্যানেলে রেখেছি আমরা। প্ৰতিটি সংসদীয় কেন্দ্ৰের জন্য দুজন করে সম্ভাব্য প্ৰার্থীর নাম প্যানেলে রাখা হয়েছিল বলে তিনি উল্লেখ করেন’।

‘এমনকি দিল্লিতে বৈঠকের সময় প্যানেলে উল্লেখ থাকা প্ৰত্যেকের নামই আমরা অন্তর্ভুক্ত করেছিলাম। তাছাড়া কিছু নতুন মুখেরও প্ৰস্তাব রাখা হয়েছিল’। তেজপুর ও নগাঁও কেন্দ্ৰে কাকে প্ৰার্থী করা হবে তা নিয়ে আলোচনা চলছে। তবে বাকি আটটি আসনে প্ৰার্থীর নাম চূড়ান্ত করা হয়েছে এবং এই তালিকা এখন দল সভাপতি অমিত শাহর অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে’।

Next Story