Top
Begin typing your search above and press return to search.

পেঙেরি-বরদুমসা সীমান্তে প্ৰচুর গোলাবারুদ উদ্ধার,জোরদার নিরাপত্তা ব্যবস্থা

পেঙেরি-বরদুমসা সীমান্তে প্ৰচুর গোলাবারুদ উদ্ধার,জোরদার নিরাপত্তা ব্যবস্থা

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  18 March 2019 12:29 PM GMT

ডিগবয়ঃ পেঙেরি পুলিশের একটি দল শনিবার সন্ধ্যায় তরানি সংরক্ষিত বনাঞ্চলের অধীন তরানি এলাকার একটি ফসলি জমি থেকে প্ৰচুর পরিমাণে গোলা বারুদ ও অন্যান্য সামগ্ৰী উদ্ধার করেছে। এই অভি্যানে নেতৃত্ব দেন সার্কল ইন্সপেক্টর গিরিন সোনোয়াল। উদ্ধারকৃত সামগ্ৰীর মধ্যে রয়েছে ৫৬ রাউন্ড তাজা গোলাবারুদ,তিনটি একে সিরিজের ম্যাগজিন এবং টর্চ লাইট সহ মায়ানমারে তৈরি অন্যান্য কিছু নিত্য ব্যবহার্য সামগ্ৰী। মার্ঘেরিটার এসডিপিও দেবব্ৰত মরাং একথা জানিয়েছেন। পুলিশ সূত্ৰের মতে,স্থানীয় একজন গ্ৰামপ্ৰধান ফুলোজিৎ মরান আপত্তিজনক সামগ্ৰীগুলি দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেন। এরপরই পুলিশ এসে ওই সামগ্ৰীগুলি বাজেয়াপ্ত করে।

লোকসভা ভোটের মুখে বিপুল পরিমাণে গোলা বারুদ উদ্ধার হওয়ার ঘটনায় ওই এলাকায় চাঞ্চল্য দেখা দেয়। পুলিশ ও নিরাপত্তা বাহিনী ওই এলাকায় আলফার আলোচনা বিরোধী গোষ্ঠীর আনা গোনা উপলব্ধ করে ইতিমধ্যেই সংগঠনটির বিরুদ্ধে অভি্যানে নেমেছে। এমনিতেই এলাকাটি জঙ্গি প্ৰবণ। আলফা বিদ্ৰোহীরা অতীতেও ওই এলাকায় বিভিন্ন অন্তর্ঘাতমূলক ও সমাজবিরোধী কার্যকলাপ ঢালানোর অভিযোগ রয়েছে। মায়ানমারে জঙ্গি বিরোধী অভি্যানের সময় মায়ানমার সেনার তাড়া খেয়ে আলফার ছয়জনের একটি দল তিনসুকিয়া জেলায় ঢুকেছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। অরুণাচল সীমান্তের পেঙেরি-বরদুমসা এলাকায় আলফার একটা গোষ্ঠীর আনাগোনার রিপোর্ট পাওয়া গেছে। জেলা পুলিশের একজন কর্মকর্তা একথা জানান। সীমান্তের ওই এলাকায় জঙ্গিদের যেকোনও অশুভ প্ৰবণতা ঠেকাতে পুলিশ প্ৰয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্ৰহণ করেছে। তবে সীমান্তের ওই এলাকায় সমাজবিরোধী শক্তিগুলোর দৌরাত্ম্য প্ৰতিহত করতে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করে তোলা হয়েছে।

Next Story