ইন্টারন্যাশনাল

বাংলাদেশে ভোট : ফলাফল প্রত্যাখ্যান বাম গণতান্ত্রিক জোটের

বাংলাদেশে ভোট

বাংলাদেশের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোট গ্রহণ শেষে শুরু হয়ে যায় গণনা। গত শনিবার দেশের ২৯৯টি কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ নিয়ে অভিযোগও উঠেছে বিস্তর। বিভিন্ন জায়গা থেকে  কারচুপি, ভোট দিতে বাধা দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। তবে ফলাফল ঘোষণার শুরুতেই তা প্রত্যাখ্যান করে বাংলাদেশের বাম গণতান্ত্রিক জোট।

তারা এই  নির্বাচনকে ‘প্রহসনের’ নির্বাচন বলে মন্তব্য করে প্রেস বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে।সরকারি দল আওয়ামি লিগের তরফে অবশ্য নির্বাচনকে শান্তিপূর্ণ ও অবাধ বলেই দাবি করা হয়েছে। যদিও অনেকে এমনও অভিযোগ করেন, ঘণ্টাব্যাপী সময় ধরে লাইনে দাড়িয়ে থাকেও কেন্দ্রে প্রবেশ করতে পারেননি। তাঁদের অভিযোগ, মহাজোটের কর্মীরা নিজেদের পরিচিত ছাড়া কাউকে ভেতরে প্রবেশ করতে দিচ্ছেন না। একাধিক জায়গায় দেখা গিয়েছে বুথ খালি। মহাজোটের একাধিক কর্মীরা বুথে অবস্থান করছেন। তাদের কেউ কেউ একটু পরপর একেকজন করে ভোটার নিয়ে ভোটদান কক্ষে প্রবেশ করে আবার বের হয়ে আসছেন।

সব মিলিয়ে ভোটের অন্য ছবিও ধরা পড়েছে কোথাও কোথাও।যে কারণে ওই দিনই প্রেস বিজ্ঞপ্তি বাম গণতান্ত্রিক জোট জানায়, “গোটা দেশকে অবরুদ্ধ করে ভোটারদের ভোটাধিকার হরণ করে আরও একবার যে জবরদস্তিমূলক প্রহসনের নির্বাচন মঞ্চস্থ করা হল। বাম গণতান্ত্রিক জোট এই নির্বাচন ও নির্বাচনের ফলাফলকে ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করছে”।বিরোধী দলের নির্বাচন প্রত্যাখ্যান করলেও এ বারের ভোট নিয়ে গর্ববোধ করেন বলে জানান নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব হেলালুদ্দিন আহমদ। দেশের ২২টি কেন্দ্র ছাড়া বাকি সব কেন্দ্র্রে শান্তিপূর্ণভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে বলে তিনি দাবি করেছেন।

উল্লেখ্য, বেসরকারি মতে, বাংলাদেশ নির্বাচনে গত রবিবার ১৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।