সংবাদ শিরোনাম

চুরি যাওয়া বাইক পাচারের ট্ৰ্যানজিট পয়েন্ট হয়ে পড়েছে জিআরএস

জিআরএস
Representative image

 

গুয়াহাটিঃ সরকারি রেলওয়ে পুলিশ(জিআরপি)দিল্লি থেকে চুরি যাওয়া মোটর সাইকেল বিক্ৰির জন্য গুয়াহাটিতে পাঠানোর দুটি মামলার তদন্ত করছে। চুরি যাওয়া ওই বাইকগুলো ক্যুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে গুয়াহাটি রেল স্টেশন হয়ে উত্তর পূর্বাঞ্চলে বিক্ৰির জন্য পাঠানো হয়েছিল। মামলার তদন্তকালে জিআরপি সম্প্ৰতি গুয়াহাটি রেল স্টেশনের পার্সেল অফিস থেকে পালসারস,সিবিজেডএস,এফজেডএস,ইয়ামাহা আরএক্সএস,একটি রয়েল এনফিল্ড সহ আরও ২৯টি বাইক উদ্ধার করে। এই ঘটনা থেকে এটাই প্ৰতীয়মান হয়েছে যে রাজধানী দিল্লি থেকে চুরি যাওয়া বাইক উত্তর পূর্বাঞ্চলে পাঠানোর ঘটনা দীর্ঘদিন থেকেই চলছে।

ঘটনা সংক্ৰান্ত সম্প্ৰতি ভারতীয় দণ্ডবিধির ১৬৫/১৯ ইউ/এস ৩৭৯ এবং ১৬৭/১৯ ইউএস ৩৭৯/৪৭১ ধারায় দুটি মামলা নথিভুক্ত করা হয়েছিল। জিআরপি কর্মীরা তল্লাশি চালিয়ে গুয়াহাটি রেল স্টেশনের পার্সেল অফিস থেকে আরও ২৯টি মোটর সাইকেল উদ্ধারে সক্ষম হয়। তদন্তকালে এটাও প্ৰকাশ্যে এসেছে যে ওই গুদামে বেশকিছু বাইক দশ বছরেরও বেশি সময় থেকে পড়ে আছে। এতে এটাই প্ৰমাণিত হয় যে রাজধানীর একটা চক্ৰ চুরি যাওয়া বাইক উত্তর পূর্বাঞ্চলে পাঠানোর ঘটনায় কমপক্ষেও দশ বছরের বেশি থেকে যে সক্ৰিয় রয়েছে তাতে কোনও সন্দেহ নেই। তদন্তকারীদের মতে,২৯টি মোটর সাইকেলের মধ্যে ২২টি যে চুরি যাওয়া সে ব্যাপারে নিশ্চিত হওয়া গেছে। জাল নথিপত্ৰের মাধ্যমে দিল্লি থেকে এগুলো উত্তর পূর্বাঞ্চলে বিক্ৰির জন্য পাঠানো হয়েছিল। বাকি ৭টি বাইক সম্পর্কে সন্দেহ পোষণ করেছেন তদন্তকারী কর্মকর্তারা। তদন্তকারীরা আরও বলেছেন,পার্সেল গুদামে আরও কিছু বাইক প্ৰায় দশ বছর ধরে এমনিতেই পড়ে আছে এবং সেগুলির ডেলিভারি নিতে কেউই এগিয়ে আসেনি।

উল্লেখ্য,গত সপ্তাহে জিআরপি কর্মীরা গুয়াহাটি রেল স্টেশনের পার্সেল অফিসে তল্লাশি চালিয়ে ১৩টি রয়েল এনফিল্ড মোটর সাইকেল উদ্ধার করেছিল। চুরি যাওয়া এই বাইকগুলো দিল্লি থেকে উত্তর পুবের বিভিন্ন স্থানে বিক্ৰির জন্য পাঠানো হয়েছিল।

 

অন্যান্য খবরের জন্য পড়ুনঃ নবরাত্ৰির ব্ৰতধারী যাত্ৰীদের আহারের জন্য রেলের বিশেষ পদক্ষেপ

অধিক খবরের জন্য ভিডিও দেখুন: Durga Puja 2019: Sharda Trophy Award presented in Tinsukia