Top
Begin typing your search above and press return to search.

এলোমেলো গাড়ি পার্কিং মহানগরীতে সমস্যার সৃষ্টি করছে

এলোমেলো গাড়ি পার্কিং মহানগরীতে সমস্যার সৃষ্টি করছে

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  10 Jun 2019 1:24 PM GMT

গুয়াহাটিঃ মহানগরী গুয়াহাটির নো পার্কিং জোনে নিজের খেয়াল খুশি মতো এলোমেলো ভাবে গাড়ি পার্কিং করে আজকাল ট্ৰাফিক আইন ভাঙার যেন অঘোষিত প্ৰতিযোগিতা শুরু হয়েছে। শিক্ষিত লোকেদের মধ্যেই এই প্ৰবণতা বেশি দেখা যাচ্ছে। ট্ৰাফিক আইন বা নিয়মনীতি রক্ষায় পুলিশকে তাদের সাহায্যর হাত বাড়ানো উচিত। কিন্তু কার্যক্ষেত্ৰে তার উল্টোটাই করছেন তারা।

এক্ষেত্ৰে কিছু উদাহরণ তুলে ধরে বলা যায়,উলুবাড়ি,ভঙাগড়,গণেশগুড়ি এবং ছয়মাইলে উড়াল সেতুর নিচে পার্কিঙের জন্য নির্দিষ্ট ঠাঁই রয়েছে। যে কেউ এই সব পার্কিং লটে নিজের গাড়ি অনায়াসে পার্কিং করতে পারেন। পার্কিঙের জন্য গাড়ি বাবদ মাশুল মাত্ৰ দশ টাকা।

কিন্তু আশ্চয্যের বিষয় হচ্ছে কিছু কিছু লোক আছেন যারা বিলাসী গাড়ি নিকটবর্তী পার্কিং লটে না রেখে রাস্তার পাশে যেখানে সেখানে পার্কিং করছেন। এভাবে এলোমেলো পার্কিং করার ফলে পথে যানজটের সৃষ্টি হওয়া ছাড়াও বিভিন্ন ধরনের অসুবিধা দেখা দিচ্ছে। অনেক সময় রাস্তার দুপাশেই নো পার্কিং জোনে গাড়ি থামিয়ে রাখতে দেখা যায়। এরফলে রাস্তার পরিসর সঙ্কুচিত হয়ে যানবাহন চলাচলে ব্যাঘাত সৃষ্টি করে। এব্যাপারে পুলিশ ধরাধরি করলে ৩০০ থেকে ৫০০ টাকা পর্যন্ত জরিমানা ভরতেও রাজি নন তথাকথিত সচ্ছল পরিবারের লোকেরা। শিক্ষিত লোকেদের নির্ধারিত পার্কিং লটে ১০ টাকা মাশুলের বিনিময়ে গাড়ি পার্কিঙে অনীহা কেন তা নিয়েও প্ৰশ্ন উঠেছে।

শহরের জিএস রোড,আরজি বরুয়া রোড,এমজি রোড এবং অন্যান্য বেশকিছু স্থানের নন পার্কিং জোনে গাড়ি রাখার এই প্ৰবণতা হামেশাই নজরে আসে। ট্ৰাফিক আইন লঙ্ঘন না করে নির্ধারিত পার্কিং লটে গাড়ি পার্কিং করা হলে যানবাহন চলাচলে কোনওরকম ব্যাঘাত ঘটবে না বলেই সচেতন মহল মনে করেন।

Next Story