Begin typing your search above and press return to search.

অসমে জনতার আদালত ক্যা প্ৰত্যাখ্যান করেছেনঃ সমুজ্জ্বল ভট্টাচার্য

অসমে জনতার আদালত ক্যা প্ৰত্যাখ্যান করেছেনঃ সমুজ্জ্বল ভট্টাচার্য

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  6 Feb 2020 8:25 AM GMT

গুয়াহাটিঃ সারা অসম ছাত্ৰ সংস্থার(আসু)মুখ্য উপদেষ্টা সমুজ্জ্বল কুমার ভট্টাচার্য বলেছেন,সংসদে সংখ্যাগরিষ্ঠতার জোর থাকায় কেন্দ্ৰের বিজেপি নেতৃত্বাধীন সরকার নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলকে(ক্যাব)পাস করিয়ে আইনি রূপ দিতে পেরেছে। কিন্তু অসমে জনতার আদালত নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনকে(ক্যা)খারিজ করে দিয়েছেন।

বরিষ্ঠ আসু নেতা বুধবার কামরূপ জেলার মির্জার কাছে আমরেঙ্গা বরিহাটে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের(ক্যা)বিরুদ্ধে এক ‘গণ হুংকার’ কর্মসূচিতে ভাষণ দিচ্ছিলেন। এব্যাপারে বিস্তারিত ব্যাখ্যা করে ভট্টাচার্য বলেন,‘সরকার বলছে,কা রূপায়িত হলে রাজ্যে ৫ লক্ষের বেশি একজনও বাংলাদেশি ভারতীয় নাগরিকত্ব পাবে না। কেন তারা পাঁচ লক্ষের কথা বলছে। আমরাতো একজনও বাংলাদেশির বোঝা আর কাঁধে নিতে রাজি নই। কারণ,১৯৫১ থেকে ১৯৭১ সালের মধ্যে রাজ্যে আসা সব বাংলাদেশির বোঝা আমরা ইতিমধ্যেই বহন করেছি’।

প্ৰতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রেখে আসুর সভাপতি দীপাঙ্ক কুমার নাথ বলেন,‘নির্বাচনের আগে বিজেপি পরিবর্তনের কথা বলেছিল। কিন্তু ক্ষমতায় আসার পর তারা রাজ্যের মানুষের সঙ্গে প্ৰতারণা করেছে’।

অভিনেত্ৰী বর্ষা রানি বিষয়া বলেন,‘বাংলাদেশি ভোট ব্যাংকের তাড়নায়ই সরকার নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন এনেছে’। অসম জাতীয়তাবাদী যুব ছাত্ৰ পরিষদের(এজেওয়াইসিপি)সাধারণ সম্পাদক পলাশ চাংমাই বলেন, নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন(ক্যা)প্ৰত্যাহার না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে।

আসুর এই গণ হুংকার কর্মসূচিতে এজেওয়াইসিপি-র অংশগ্ৰহণে এদিনের প্ৰতিবাদে ভিন্ন মাত্ৰা যোগ করে।

অন্যান্য খবরের জন্য পড়ুনঃ অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণে ট্ৰাস্ট গঠনের কথা ঘোষণা করলেন প্ৰধানমন্ত্ৰী মোদি

অধিক খবরের জন্য ভিডিও দেখুন: Woman set on fire by in-laws in Katigara under Cachar, Rescued after one month

Next Story