Begin typing your search above and press return to search.

নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল(ক্যাব)২০১৯ কেন্দ্ৰীয় মন্ত্ৰিসভায় অনুমোদিত

নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল(ক্যাব)২০১৯ কেন্দ্ৰীয় মন্ত্ৰিসভায় অনুমোদিত

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  5 Dec 2019 7:17 AM GMT

নয়াদিল্লিঃ কেন্দ্ৰীয় মন্ত্ৰিসভা বুধবার নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল(ক্যাব)২০১৯ অনুমোদন করেছে। এই বিলে পাকিস্তান,আফগানিস্তান এবং বাংলাদেশে ধর্মীয় নির্যাতনের শিকার হয়ে এদেশে পালিয়ে আসা হিন্দু,খ্ৰিস্টান,শিখ,পার্শি,জৈন এবং বৌদ্ধ সম্প্ৰদায়ের লোকেদের ভারতীয় নাগরিকত্ব দিয়ে চাওয়া হচ্ছে।

এসম্পর্কিত এক প্ৰশ্নের জবাবে কেন্দ্ৰীয় তথ্য ও সম্প্ৰচার দপ্তরের মন্ত্ৰী প্ৰকাশ জাভড়েকর বলেন,ভারতের স্বার্থেই এই বিল আনা হচ্ছে। ‘আমি নিশ্চিত যে বিলের বিধি ব্যবস্থাগুলি যখন ঘোষণা করা হবে তখন অসম,উত্তর পূর্বাঞ্চল এবং গোটা দেশ এটিকে স্বাগত জানাবে’। তিনি বলেন,দু-একদিনের মধ্যেই বিলটি সংসদে তোলা হবে। জাভড়েকর আরও বলেন,বিলটি একবার উত্থাপন করা হলে তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা যাবে। তিনি বলেন,স্বাভাবিক ন্যায় ব্যবস্থা অনু্যায়ী বিলের অন্তর্নিহিত বিষয় রাষ্ট্ৰীয় স্বার্থের অনুকূলেই রয়েছে। বিলে ১৯৫৫ সালের নাগরিকত্ব আইনটি সংশোধনী করা হয়েছে অবৈধভাবে আসা একটা নির্বাচিত গোষ্ঠীর লোকেদের নাগরিকত্ব ইস্যু করার লক্ষ্যে। তবে বিরোধী এবং সংখ্যালঘু সংগঠন ও অন্যান্যরা এর বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছেন। মুসলিমদের এর আওতা থেকে বাদ দেওয়া নিয়ে প্ৰশ্ন তুলেছেন তারা। তাদের মতে এটা ভারতীয় সংবিধানের মূল ধারার পরিপন্থী। কারণ,ধর্মের ভিত্তিতে নাগরিকত্ব প্ৰদানের বিষয়ে সংবিধানে কোনও পার্থক্য দেখানো হয়নি।

অন্যান্য খবরের জন্য পড়ুনঃ হাত কেটে রক্ত দিয়ে শ্লোগান লিখে সরকারের বিরুদ্ধে প্ৰতিবাদ বিধায়ক কুর্মির

অধিক খবরের জন্য ভিডিও দেখুন: AASU stand against CAB, threatens to launch oust-govt movement in Assam

Next Story