Top
undefined
Begin typing your search above and press return to search.

করোনা আক্ৰান্ত পর্যটকের সংস্পর্শে আসা ৪০০-র বেশি ব্যক্তিকে নিরীক্ষণের ব্যবস্থাঃ ড. শর্মা

করোনা আক্ৰান্ত পর্যটকের সংস্পর্শে আসা ৪০০-র বেশি ব্যক্তিকে নিরীক্ষণের ব্যবস্থাঃ ড. শর্মা

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  9 March 2020 1:07 PM GMT

গুয়াহাটিঃ সম্প্ৰতি অসম হয়ে ভুটানে যাওয়া যে মার্কিন পর্যটকের শরীরে মারাত্মক করোনা ভাইরাস ধরা পড়েছে অসমে সেই ব্যক্তির সান্নিধ্যে আসা ৪০০-র বেশি লোককে পৃথকভাবে রেখে তাদের পর্যবেক্ষণে রাখার ব্যবস্থা করেছে রাজ্য সরকার। রবিবার সন্ধ্যায় টুইটারে একথা প্ৰকাশ করেন স্বাস্থ্যমন্ত্ৰী ড.হিমন্তবিশ্ব শর্মা। এক টুইটে মন্ত্ৰী শর্মা বলেছেন যে ওই মার্কিন পর্যটকের সান্নিধ্যে আসা রাজ্যের বিভিন্ন স্থানের চারশো জনের বেশি ব্যক্তিকে স্বাস্থ্য বিভাগ খুঁজে বের করেছে। সেই-অনু্যায়ী তাদের পৃথকভাবে রেখে নিরীক্ষণেরও ব্যবস্থা করা হয়েছে বলে মন্ত্ৰী জানান। উল্লেখ্য যে গত ২২ ফেব্ৰুয়ারি ওই মার্কিন পর্যটক বিমানে যোরহাটে আসেন। পরে তিনি মাজুলিতে যান এবং ওখান থেকে মহাবাহু নামে একটি বিলাসী নৌকোয় চেপে নদীপথে গুয়াহাটি এসে পৌঁছন। গুয়াহাটিতে তিনি পাঁচ তারা হোটেল রেডিশন ব্লুতে ছিলেন।

এরই পরিপ্ৰেক্ষিতে স্বাস্থ্য বিভাগ পর্যটকের সান্নিধ্যে আসা যোরহাট,মাজুলি ও গুয়াহাটির চার শতাধিক লোককে পৃথকভাবে রেখে তাদের পর্যবেক্ষণের ব্যবস্থা করে। এই সমস্ত লোকেদের মধ্যে কয়েকজন পর্যটকের সঙ্গে মহাবাহু নামের ওই নৌকায় সওয়ার হয়েছিলেন বলে উল্লেখ করেন স্বাস্থ্যমন্ত্ৰী। তবে রাজ্যে করোনা ভাইরাসে কেউ আক্ৰান্ত হয়নি বলে উল্লেখ করে শর্মা বলেন,পাঁচজন এই রোগে আক্ৰান্ত বলে সন্দেহ করে তাদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়। তবে তাসদের শরীরে করোনার জীবাণু ধরা পড়েনি। তাছাড়া অসম ভ্ৰমণে আসা একজন মার্কিন নাগরিকের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়ছিল তবে তাঁর শরীরে এই ভাইরাস ধরা পড়েনি-টুইটারে উল্লেখ করেন শর্মা।

মন্ত্ৰী অবশ্য রাজ্যবাসীকে কোনওভাবে আতঙ্কিত না হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। উল্লেখ্য,অসম ভ্ৰমণ শেষে ভুটানে উপস্থিত হওয়ার পর ওই মার্কিন নাগরিকের শরীরে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পড়শি দেশের প্ৰধানমন্ত্ৰী লটে শেরিং জানিয়েছেন। এক টুইটযোগে সম্প্ৰতি ভূটানের প্ৰধানমন্ত্ৰী শেরিং বলেছেন,ওই পর্যটক গত ৫ মার্চ ভুটানে এসে উপস্থিত হন। এই আমেরিকান পর্যটক গত ১৮ ফেব্ৰুয়ারি ওয়াশিংটন ডিসি থেকে ভারত অভিমুখে পাড়ি দেন। কলকাতা থেকে এই পর্যটক অসমে এসেছিলেন। গত ৫ মার্চ তিনি গুয়াহাটি থেকে ভুটান যাত্ৰা করেন। ভুটানে তিনি বিভিন্ন স্থান পরিদর্শন করেন। ওখানে থিম্পু,পারো ও পুনাখার বহু স্কুলও পরিদর্শন করেন তিনি। এই বিষয়টি নিয়ে ভুটান এবং অসমে আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে।

অন্যান্য খবরের জন্য পড়ুনঃ করোনার সংক্ৰমণ ঠেকাতে ভারত-মায়ানমার সীমান্ত সিল করার দাবি মিজোরাম কংগ্ৰেসের

অধিক খবরের জন্য ভিডিও দেখুন: Doul Govinda Temple agog as Holi begins

Next Story