Top
Begin typing your search above and press return to search.

সাবধান! গুয়াহাটিতে শীঘ্ৰই নতুন মোটর ভেহিকলস আইন রূপায়ণ হতে পারে

সাবধান! গুয়াহাটিতে শীঘ্ৰই নতুন মোটর ভেহিকলস আইন রূপায়ণ হতে পারে

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  17 Sep 2019 1:46 PM GMT

গুয়াহাটিঃ সিটি পুলিশ খুব শিগগিরই গুয়াহাটিতে নতুন মোটর ভেহিকলস(সংশোধনী)আইন ২০১৯ বলবৎ করতে পারে। ডেপুটি কমিশনার অফ পুলিশ(ট্ৰাফিক)প্ৰশান্ত শইকিয়া সম্প্ৰতি বলেছেন,‘আমরা কেন্দ্ৰের বিজ্ঞপ্তির অপেক্ষায় রয়েছি। বিজ্ঞপ্তি হাতে এলেই আমরা আগামি সপ্তাহ থেকে এই আইন রূপায়ণ করবো। নতুন আইন অনু্যায়ী ট্ৰাফিক আইন ভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে জরিমানা ও বিচার প্ৰক্ৰিয়া শুরু হয়ে যাবে’।

তিনি বলেন,এই আইন চালু হবার পর থেকে মানুষ আইন সম্পর্কে সজাগ রয়েছেন এবং তারা সতর্কতামূলক ব্যবস্থাও গ্ৰহণ করেছেন। ‘আগামি দিনগুলিতে ট্ৰাফিক আইন লঙ্ঘনের মাত্ৰা কমবে,জরিমানার অঙ্ক অত্যন্ত বেশি হওয়ায়। নতুন আইন সম্পর্কে জনগণকে সচেতন করতে বিভিন্ন স্থানে সচেতনতা কর্মসূচি শুরু করেছি আমরা’।

তিনি দাবি করেন ১৮ থেকে ৪৫ বছর বয়সী মানুষ সড়ক দুর্ঘটনার ক্ষেত্ৰে খুবই সংবেদনশীল। কারণ তারা ট্ৰাফিক আইনের মূল বিষয়গুলি অনুসরণ করেন না। অনেক মানুষ পথে চলার সময় নিয়ম ভাঙেন এবং এরফলে দুর্ঘটনায় অঙ্গ খুইয়ে বসেন-বলেন তিনি।

‘আমরা শুধু অসামরিক ব্যক্তিদের ধরবো না। পুলিশ কর্মীর মধ্যে কেউ আইন ভাঙলে তাদেরও রেয়াত করা হবে না। যেকোনও ব্যক্তি আইন ভাঙলে আমরা অ্যাকশন নেবো এবং জরিমানার পরিমাণ দ্বিগুণ চাপানো হবে-বলেন শইকিয়া।

তিনি বলেন,ট্ৰাফিক পুলিশ কর্মীরা যাতে সবার কাছে বন্ধু হয়ে উঠতে পারেন আমরা তার চেষ্টা করছি। আমাদের কনস্টেবলদের আচরণ শুধরোনোর জন্য সপ্তাহে কমপক্ষেও তিনবার প্ৰশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। আমরা পুলিশকে পথে প্ৰত্যেকের সঙ্গে নম্ৰ-ভদ্ৰ আচরণ করতে বলেছি।

শইকিয়া আরও দাবি করেন,লেন ড্ৰাইভিং রুল সম্পর্কে অনেক মানুষই জ্ঞাত নন। ড্ৰাইভিঙের সময় একটা নির্দিষ্ট লেন ধরে চলার গুরুত্ব সম্পর্কে জনগণকে সচেতন করতে পুলিশ বিভিন্ন অভিযান চালাচ্ছে।

নতুন আইন মতে,মোটর সাইকেল চালানোর সময় পায়ে জুতো না থাকলে পুলিশ ফাইন করবে। তাছাড়া দুচাকার যানের পিছনে বসা আরোহীকেও হেলমেট পরতে হবে। না হলে জরিমানা অনিবার্য। ট্ৰাফিক পুলিশ গাড়ির যাত্ৰীদের সিট বেল্ট বাধা বাধ্যতামূলক করতে পারে। সূত্ৰটি আরও বলেছে যে সব গাড়ি অতিরিক্ত শব্দ বা বায়ু দূষণ করবে সেগুলির বিরুদ্ধেও পুলিশ পদক্ষেপ নিতে পারে।

এবছর জানুয়ারি থেকে জুলাই পর্যন্ত এ শহরে ৭৫টি সড়ক দুর্ঘটনা ঘটেছে। এই সব দুর্ঘটনার ১৮ জন নিহত এবং ৭১ জন গুরুতর আহত হয়েছেন।

২০১৮ সালে ১০৫১টি সড়ক দুর্ঘটনা ঘটেছে। এই সমস্ত দুর্ঘটনায় মারা গেছেন ২৫৮ জন এবং আহত হয়েছেন ৭৭৫ জন। ২০১৭-তে ৯৭৭টি দুর্ঘটনা ঘটেছিল।

অন্যান্য খবরের জন্য পড়ুনঃ ১৬২টি ধর্মীয় প্ৰতিষ্ঠানের বার্ষিক অনুদান বাড়িয়ে ২ লক্ষ টাকা করল দিশপুর

অধিক খবরের জন্য ভিডিও দেখুন: ABMSU staged 2 hr road blockade in Kokrajhar | The Sentinel News | Assam News

Next Story