Begin typing your search above and press return to search.

গোয়ালপাড়ায় আটক তিন সন্দেহভাজন সন্ত্ৰাসী

গোয়ালপাড়ায় আটক তিন সন্দেহভাজন সন্ত্ৰাসী

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  26 Nov 2019 8:19 AM GMT

গোয়ালপাড়াঃ অসম পুলিশ এবং দিল্লি পুলিশের একটি বিশেষ সেল যৌথ অভিযান চালিয়ে নিম্ন অসমের গোয়ালপড়া জেলা থেকে শনিবার তিন সন্দেহভাজন সন্ত্ৰাসীকে আটক করেছে। স্পেশাল সেলের এসিপি ললিত মোহন এবং হৃদয় ভূষণের তত্ত্বাবধানে অভি্যানে নেতৃত্ব দেন ইন্সপেক্টর সুনীল রঞ্জন,রবীন্দার যোশী এবং বিনোদ বাদেলা। আটক তিন সন্দেহভাজন সন্ত্ৰাসীকে রঞ্জিত ইসলাম ওরফে রঞ্জিত আলি(২৪),মুক্তাদির ইসলাম(২২)এবং লুইত জামিল জামান ওরফে আলি(২৪)নামে শনাক্ত করা হয়েছে। আলবুদ্দিন শেখের ছেলে রঞ্জিত গোয়ালপাড়া জেলার কৃষ্ণাইয়ের নয়াপাড়ার বাসিন্দা। জহিরুল ইসলামের ছেলে মুক্তাদির ইসলাম কৃষ্ণাইয়ের সরদাবরা গ্ৰামের। লুইত জামিল জামান কৃষ্ণাইয়ের সরদাবরা গ্ৰামের বাসিন্দা মেহমুদ আলির ছেলে। অভিযুক্তরা দুধনৈয়ের রাস মেলায় বিস্ফোরণ ঘটানোর উদ্দেশ্যে একটি আইইডি হাতে রেখেছিল। আটক তিন যুবক বাংলাদেশের জেহাদি সংগঠন আইএস আইএস-এর দ্বারা অনুপ্ৰাণিত বলে জানা গেছে। এছাড়াও তরোয়াল ও ছুরি ইত্যাদিও তাদের সঙ্গে ছিল। ধৃতদের জেরার ভিত্তিতে অভি্যানে নেমে পুলিশ সন্ত্ৰাসীদের দুটি গোপন ডেরা থেকে বেশকিছু আইইডি সহ বিস্ফোরক সামগ্ৰী উদ্ধার করেছে। দিল্লি পুলিশের এক প্ৰেস বিবৃতিতে এখবর জানানো হয়েছে। দুধনৈয়ে চলা রাস মেলার শেষ দিনে সন্ত্ৰাসী হামলা চালানোর পরিকল্পনা এঁটেছিল এরা। সন্দেহভাজন তিন সন্ত্ৰাসী দিল্লিতে থাকা আইএস-এর একটি নেটওয়র্কের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করে চলছিল। দুধনৈয়ের পর দিল্লিকে টার্গেট করারও ছক করেছিল এরা-জানানো হয় ওই বিবৃতিতে। গোয়েন্দা সূত্ৰের তথ্যের ভিত্তিতেই দিল্লি পুলিশ জেহাদি সংগঠনের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে গোয়ালপাড়ার একদল যুবককে চিহ্নিত করে। জেহাদি সংগঠনের এই তৎপরতা সম্পর্কে গোয়েন্দা সূত্ৰে জানার পরই দিল্লি পুলিশের বিশেষ সেল অসম পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করে। এরপরই দিল্লি পুলিশের বিশেষ সেল ও অসম পুলিশ গোয়ালপাড়া শহরের মধুবন লজে ফাঁদ পেতে এই তিন সন্দেহভাজন জঙ্গিকে আটক করতে সফল হয়। বর্তমানে এদের জেরা করা হচ্ছে। জেরার মুখে পড়ে ধৃতরা স্বীকার করেছে দুধনৈয়ের রাস মেলায় আইইডি বিস্ফোরণের পরিকল্পনা পাকা করেছিল তারা। সন্দেহভাজন যুবকরা বলেছে,অসমে পরীক্ষা মূলক এই বিস্ফোরণের পর দিল্লিকে তারা পরবর্তী টার্গেট করেছিল। দিল্লির বেশ কিছু লোককেও তারা মৌলবাদের পাঠও শিখিয়েছে বলে জানা গেছে।

এদিকে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার(এএসপি)অমিতাভ বসুমতারির উপস্থিতিতে এক সাংবাদিক সম্মেলনে গোয়ালপাড়া পুলিশ বলেছে ‘আমরা ধৃতদের জেরা চালিয়ে যাচ্ছি’। এদের অন্য কোনও জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে সম্পর্ক আছে কি না তদন্তের পর সেটাও জানা যাবে। ঘটনা সংক্ৰান্তে গোয়ালপাড়া থানায় একটি মামলা নথিভুক্ত করা হয়েছে।

অন্যান্য খবরের জন্য পড়ুনঃ অসমে ভোটার ভেরিফিকেশন কর্মসূচিতে ব্যাপক সাড়া

অধিক খবরের জন্য ভিডিও দেখুন: Broad day light robbery in Digboi, Miscreants loot cash Rs 1.60 lakh

Next Story